জরুরি নির্দেশনাঃ ক্লাস শুরুর আগেই অধিদফতরের নতুন নির্দেশনা

রোববার (১২ সেপ্টেম্বর) থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শ্রেণি কার্যক্রম শুরু হবে। তবে সরাসরি শ্রেণি পাঠদানের আগেই শিক্ষকরা অভিভাবকদের সঙ্গে মোবাইল ফোন অথবা ভার্চুয়ালি যোগাযোগ করে জনস্বাস্থ্য ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউরের জরুরি তথ্য অবহিত করবেন।

শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর এ সংক্রান্ত নির্দেশনা জারি করেছে।

নির্দেশনায় জানানো হয়, কোভিড-১৯ সংক্রমণ পরিস্থিতিতে আন্তঃমন্ত্রণালয় সভার সিদ্ধান্তের আলোকে জনস্বাস্থ্য ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে বিদ্যালয়গুলোয় রবিবার (১২ সেপ্টেম্বর) থেকে সরাসরি শ্রেণি পাঠদান চালু করার নির্দেশনা রয়েছে। কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি ও পরামর্শক কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে খোলার বিষয়ে কোভিড-১৯ স্বাস্থ্যবিধি সংক্রান্ত একটি স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর (এসওপি) প্রস্তুত করে ইতোমধ্যে মাঠ পর্যায়ে পাঠানো হয়েছে।

ওই স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর মোতাবেক প্রতিটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা সরাসরি পাঠদান করার আগে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অভিভাবকসহ সংশ্লিষ্ট কর্মচারীদের মোবাইল ফোন, ভার্চুয়াল মাধ্যমে জনস্বাস্থ্য ও স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণে ‘করণীয় ও বর্জনীয়’ বিষয়, সঠিকভাবে মাস্ক পরার নিয়ম, যেসকল শিক্ষার্থীদের কোভিড-১৯ রোগের লক্ষণ থাকবে তাদের বাড়িতে কোয়ারেন্টিন/আইসোলেশনে থাকা এবং তাদের সেবা-শুশ্রূষা করার নির্দেশনা প্রদান, যেসকল শিক্ষার্থী কোভিড-১৯ রোগের লক্ষণ নিয়ে বাড়িতে কোয়ারেন্টিন/আইসোলেশনে থাকবে তাদের অনুপস্থিতি হিসেবে গণ্য হবে না- এসব তথ্য অভিভাবকদের অবহিত করবেন।

এর আগে গত ৯ সেপ্টেম্বর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের প্রতিষ্ঠানের জন্য স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর প্রস্তুত করে তা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠানো হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *