আগেই ডুবেছে রোহিতরা, এবার চেন্নাইকেও ডুবিয়ে ছাড়ল মুম্বাই!

প্রথম দেখায় জয়ের জন্য যথেষ্ঠ রান করলেও শেষ ওভারে মহেন্দ্র সিং ধোনির দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের কাছে হেরেছিল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। আইপিএলের নতুন নিয়মে চেন্নাইয়ের সঙ্গে দুবার খেলার সুযোগ পেয়েছে রোহিত শর্মার দল।

প্রথম দেখায় হারলেও দ্বিতীয় ম্যাচে প্রতিশোধ নিলো পাঁচবারের চ্যাম্পিয়নরা। বৃহস্পতিবার চেন্নাই সুপার কিংসকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে মুম্বাই। এদিন মুম্বাইয়ের জয়ের কাজটা করে দিয়েছেন বোলাররা। বিশেষ করে ড্যানিয়েল স্যামসের দুর্দান্ত বোলিংয়ে প্রথম ওভারেই ফেরেন ফর্মের তুঙ্গে থাকা ডেভন কনওয়ে এবং মঈন আলী। ওপেনার রুতুরাজ গায়কোয়াড়কেও ফেরান বাঁহাতি এই পেসার। স্যামসের ১৬ রানে ৩ উইকেটের পর আর ঘুরাতে দাঁড়াতে পারেনি চেন্নাই।

মাত্র ৯৭ রানে গুটিয়ে যায় ধোনির দল। ৯৮ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ৫ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছায় রোহিতের দল। মুম্বাইয়ের জয়ের দিনে আইপিএলের প্লে অফের দৌড় থেকে ছিটকে গেলো চেন্নাই। জয়ের জন্য ৯৮ রানের লক্ষ্য তাড়ায় প্রথম ওভারেই সাজঘরে ফেরেন ইশান কিশান। মুকেশ চৌধুরির সেভেন স্টাম্পের ফুলার লেংথ বল খেলতে গিয়ে ধোনির গ্লাভসে ক্যাচ দেন বাঁহাতি ওপেনার।

মুম্বাইয়ের উইকেটকিপার এই ব্যাটার করেছেন এদিন ৫ বলে ৬ রান। ভালো শুরু করলেও থিতু হতে পারেননি রোহিত। সিমারজিৎ সিংয়ের পঞ্চম স্টাম্পের গুড লেংথ বলে ইশানের মতোই ধোনির গ্লাভসে ক্যাচ দিয়েছেন মুম্বাইয়ের অধিনায়ক। রোহিতের ব্যাট থেকে এসেছে ১৮ রান। টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারে প্রথমবার তিনে নামলেও ১ রানের বেশি করতে পারেননি স্যামস।

মুকেশের ইনসুইং ডেলিভারিতে লেগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে পড়েন ডানহাতি এই ব্যাটার। রিভিউ নিলেও শেষ রক্ষা হয়নি স্যামসের। একই ওভারে আউট হয়েছেন এদিন মুম্বাইয়ের হয়ে অভিষেক হওয়া ট্রিস্টান স্ট্যাবস। মুকেশের ব্যাক অব লেংথ ডেলিভারিতে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়ে শূন্য রানে ফেরেন দক্ষিণ আফ্রিকার এই তরুণ ক্রিকেটার। এরপর অবশ্য হৃতিক শোকেন ও তিলক ভার্মা মিলে দারুণ জুটি গড়ে তোলেন।

৩৩ রানে ৪ উইকেট হারানো মুম্বাইয়ে পরবর্তীতে জয়ের পথও দেখিয়েছেন তারা দুজন। পঞ্চম উইকেট জুটিতে তারা দুজনে যোগ করেছেন ৪৮ রান। মঈনের গুড লেংথ বলে বোল্ড হয়ে শোকেন ফিরলে ভাঙে তাদের জুটি। শোকেনের ব্যাট থেকে এসেছে ১৮ রান। শেষ দিকে টিম ডেভিডের ৭ বলে ১৬ রানের ইনিংসে ৩১ বল বাকি থাকতে জয় পায় মুম্বাই। যেখানে দুটি ছক্কা মেরেছেন সিঙ্গাপুরের এই ব্যাটার। এদিন মুম্বাইয়ের হয়ে সর্বোচ্চ রান করা তিলক অপরাজিত ছিলেন ৩২ বলে ৩৪ রানের ইনিংস খেলে।

চেন্নাইয়ের হয়ে তিনটি উইকেট নিয়েছেন মুকেশ। এর আগে টস হেরে ব্যাটিং করতে নেমে ৯৭ রানে অল আউট হয় চেন্নাই। দলের হয়ে সর্বোচ্চ রানের ইনিংস খেলা অধিনায়ক ধোনির অপরাজিত ছিলেন ৩৬ রানে। দলের তিন ব্যাটার আউট হয়েছেন শূন্য রানে। মুম্বাইয়ের হয়ে স্যামস তিনটি ও দুটি করে উইকেট নিয়েছেন রাইলি মেরিডিথ এবং কুমার কার্তিকেয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published.